Friday, September 24, 2021
Homeবৃহত্তর চট্টগ্রামকক্সবাজারপাহাড়ী ঢলের পানিতে সয়লাব ঈদগাঁওর বিভিন্ন এলাকা,ত্রান সহায়তার দাবী

পাহাড়ী ঢলের পানিতে সয়লাব ঈদগাঁওর বিভিন্ন এলাকা,ত্রান সহায়তার দাবী

এম আবু হেনা সাগর,ঈদগাঁও

পাহাড়ী ঢলের পানিতে সয়লাব হয়ে পড়ে কক্সবাজারের ঈদগাঁও উপজেলার বিভিন্ন এলাকা।  ঘরবাড়ীসহ যাতায়াত সড়ক প্লাবিত হয়ে পড়ে। দ্রুত পানিবন্দি পরিবারের মাঝে ত্রান সহায়তার দাবীও উঠেছে।  

২৭শে জুলাই সকাল থেকে উজান থেকে নেমে  আসা পাহাড়ী ঢলের পানিতে প্লাবিত হয়ে পড়েন দক্ষিন চট্রলার বৃহত্তম বানিজ্যিক কেন্দ্র ঈদগাঁও বাজারের প্রধান সড়কসহ অলিগলি। ব্যবসায়ী দের দূর্ভোগ যেন চোখে পড়ার মত। লক্ষ লক্ষ টাকার মালামাল নষ্ট হয়ে যায়। বৃহৎ এলাকার নানা স্থান পানিতে সয়লাব হয়ে উঠেছে। গ্রামের ঘরবাড়ীর পাশাপাশি চলাচল সড়ক প্লাবিত হয়ে পড়ে। 

একইদিন পোকখালীতে প্লাবিত এবং ক্ষ‌তিগ্রস্ত জায়গা প‌রিদর্শন ক‌রেন সংসদ সদস্য সাইমুম সরওয়ার কমল। এতে উপস্থিত ছিলেন, সদর উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি আবু তালেব, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সহ সভাপতি অ্যাডভোকেট একরামুল হুদা,পোকখালী চেয়ার ম্যান র‌ফিক আহমদ ও জালালাবাদ চেয়ারম্যান ইমরুল হাসান রাশেদসহ আরো অনেক।

দেখা যায়, ঈদগাঁও ভূমি অফিস, ঈদগাহ আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়,সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়,এজি লুৎফুর কবির আদর্শ কালিকা মাদ্রাসা ও ইন্টার ন্যাশনাল স্কুল, ঈদগাঁও ইউপি পরিষদ প্লাবিত হয়। সেই সাথে ঈদগাঁওর ভোমরিয়াঘোনা, মন্ডল পাড়া, কানিয়াছড়া, পাল পাড়া, মাইজ পাড়া ভাদীতলা,জাগির পাড়া,লাল শরিয়া পাড়া, ভুতিয়াপাড়া,

 কালিরছড়া,মাছুয়াখালী এবং ইসলামাবাদের খোদাইবাড়ী,বাঁশঘাটা,ইউছুপের খীল,পোকখালী-গোমাতলীসহ বিভিন্ন এলাকা জুড়েই পানিবন্দি। হাঁটু পরিমান পানি পেরিয়ে লোকজন চলাচল করছে বহু কষ্টের বিনিময়ে।লোকজনের কষ্টের শেষ সীমা ছাড়িয়ে গেছে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত বৃষ্টিপাত কমছেনা কোন ভাবেই।

সেচ্ছাসেবী সংগঠক ইমরান তাওহীদ রানার মতে, ঈদগাঁও উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় পানি বন্দি। প্লাবিত লোকজনের মাঝে দ্রুত ত্রান সহা য়তা প্রদানের জোর দাবী।

শ্রমিকলীগ নেতা আমজাদ হোসেন ছোটন রাজা জানান, ইসলামাবাদের বাঁশঘাটাস্থ জাহানারা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনেই টেকসই বেড়ি বাঁধ নির্মানের দাবী জানান। 

ঢলের পানিতে প্লাবিত রাস্তাঘাট সংস্কারে বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান ও ওয়ার্ড় জনপ্রতিনিধিদের সু দৃষ্টি কামনা করেছেন দরগাহ পাড়ার শাহজাহান মনির।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular