চট্টগ্রামে মৃত্যুর মিছিলে যুক্ত হলো নতুন করে আরো ০৪ জন

চট্টগ্রাম সিভিল সার্জন কার্যালয়,চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতাল,কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ,চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল,শেভরন ক্লিনিক্যাল ল্যাবরেটরি,চট্টগ্রাম মেডিক্যাল সেন্টার হাসপাতাল,চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়,

চট্টগ্রামে করোনা কেড়ে নিল ৪ জনের প্রাণ।এর আগের দিন ছিল না কোন প্রাণহানী।তবে গত ২৪ ঘন্টায় নতুনভাবে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ২০৫ জন।এদের মধ্যে বিভিন্ন উপজেলার বাসিন্দা ৪১ জন এবং ১৬৪ জন নগরের। 

এই পর্যন্ত চট্টগ্রামে মোট ৪৯ হাজার ৫৪৫ জন করোনা শনাক্ত হয়েছে। আক্রান্তদের মধ্যে মারা গেছেন মোট ৫০৮ জন।

এসব তথ্য জানা যায় চট্টগ্রাম সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে প্রকাশিত প্রতিবেদনে ২৮ এপ্রিল বুধবার।প্রতিবেদনের তথ্যানুযায়ী ২৪ ঘণ্টায় ১ হাজার ৬৬২ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয় কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজসহ চট্টগ্রামের ৯টি ল্যাবে। 

এছাড়া ১৯৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ল্যাবে। ৩১ জনের দেহে করোনা পাওয়া যায় চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ল্যাবে। 

বিদেশগামীদের বাধ্যতামূলক নমুনাসহ ৩২৫ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয় চট্টগ্রামের প্রধান করোনা পরীক্ষাগার বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ট্রপিক্যাল অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজেস  ল্যাবে গত ২৪ ঘন্টায়।তাদের মধ্যে ৪২ জনের শরীরে করোনা পজিটিভ পাওয়া যায়। 

জনের শরীরে করোনা উপস্থিতিতি পাওয়া যায় চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ (চমেক) ল্যাবে ৪৩৯ জনের নমুনা পরীক্ষা করে। আর ২০৯ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয় চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি অ্যান্ড অ্যানিম্যাল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয় (সিভাসু) ল্যাবে। তাদের মাঝে থেকে ৫০ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়।

চট্টগ্রামে অন্য যে সকল ল্যাবে করোনা পরিক্ষা করে পজিটিভ পাওয়া যায়,১০০ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ২১ জন শনাক্ত হয় নগরীর বেসরকারি ইম্পেরিয়াল হাসপাতাল ল্যাবে, চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল ল্যাবে ২৮টি নমুনা পরীক্ষা করে ৮জন,শেভরন ক্লিনিক্যাল ল্যাবরেটরিতে ৩০০ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ১৮ জন ও চট্টগ্রাম মেডিক্যাল সেন্টার হাসপাতালে ১০ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৩ জনের দেহে করোনা ভাইরাস পাওয়া যায়। 

৫৫ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয় চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের রিজিওনাল টিবি রেফারেল ল্যাবরেটরিতে। তার মধ্যে থেকে ২৩ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়। এছাড়া ৩টি নমুনা পরীক্ষা করা হয় চট্টগ্রামের, কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ ল্যাবে। কিন্তু তাদের মাঝে কারো মধ্যে করোনা পাওয়া যায়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.