বাড়তি সুবিধা পাইনি সরকারি দলের প্রার্থী হিসেবে : আইভী

বাড়তি সুবিধা পাইনি সরকারি দলের প্রার্থী হিসেবে : আইভী

নারায়ণগঞ্জ সিটি নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী সেলিনা হায়াৎ আইভী বলেছেন, ‘প্রশাসন কখনো আমার হাতের মুঠোয় ছিল না, নেওয়ার চেষ্টাও করিনি। আমি সব সময় জনগণের দোরগোড়ায় যাওয়ার চেষ্টা করেছি। সরকারি দলের প্রার্থী হিসেবে বাড়তি সুবিধা পাইনি, নেওয়ার চেষ্টা করিও না। জনগণ যেহেতু আমার পাশে, আমি কেন বাড়তি সুবিধা নিতে যাব?’

আজ বৃহস্পতিবার সকালে নারায়ণগঞ্জ শহরের দেওভোগ এলাকায় ১৬ নম্বর ওয়ার্ডে গণসংযোগ করার সময় সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে সেলিনা হায়াৎ আইভী এ কথা বলেন।

আইভী বলেন, তিনি তো জনবিচ্ছিন্ন কেউ নন। কেউ আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি ঘটানোর চেষ্টা করলে সেটি নিশ্চয় প্রশাসন দেখবে। এটা তাঁর দেখার বিষয় নয়। তাঁকে জনগণের কাছে যেতে হবে, জনতার কাছে ভোট চাইতে হবে। আইনশৃঙ্খলার যদি কোনো সমস্যা হয়, সেটা প্রশাসন দেখবে। এ সময় ভোটারদের উদ্দেশে তিনি বলেন, উৎসবমুখর পরিবেশে নগরবাসী ভোট দিতে যাবেন। গত দুটি সিটি নির্বাচনেও টান টান উত্তেজনা ছিল। কিন্তু ভোটের দিন নগরবাসী শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট দিয়েছে। পরিবেশ সুন্দর ছিল। নির্বাচনের পরিবেশ যেন সুন্দর থাকে, প্রশাসনের প্রতি সেই আহ্বান জানান তিনি।

স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী তৈমুর আলম খন্দকারের নেতা-কর্মীদের গ্রেপ্তার ও হয়রানি করার অভিযোগ প্রসঙ্গে আইভী বলেন, ‘আমি জানি না কাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে। যাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে, তিনি তাঁদের নাম বলুক। আমি একজনকে গ্রেপ্তারের কথা জানি, যাকে হেফাজতের নাশকতার মামলায় গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। আর কাকে ধরেছে, কী করেছে, সেটি আমি জানি না। শহরে কেউ বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করলে সেটি দেখভালের দায়িত্ব প্রশাসনের। আমি কোনো সহিংসতার সঙ্গে জড়িত নই। আমি কাউকে বলিওনি, ওকে ধরেন।’

জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদী উল্লেখ করে আইভী বলেন, মানুষ সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছেন তাঁরা কাকে ভোট দেবেন। নারায়ণগঞ্জে নৌকার গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.